IND vs ENG, ICC T20 World Cup 2022, 2nd semi final Updates: ভারতকে ১০ উইকেটে উড়িয়ে ফাইনালে ইংল্যান্ড, ১৯৯২ সালের মতোই প্রতিপক্ষ পাকিস্তান

IND vs ENG, ICC T20 World Cup 2022, 2nd semi final Updates: ভারতকে ১০ উইকেটে উড়িয়ে ফাইনালে ইংল্যান্ড, ১৯৯২ সালের মতোই প্রতিপক্ষ পাকিস্তান

India vs England live cricket score: দীর্ঘ ১৫ বছরের খরা কি কাটবে? ২০০৭ সালের পর এবার ২০২২ সালে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ চ্যাম্পিয়ন হওয়ার অপেক্ষায় টিম ইন্ডিয়া। কাপ যুদ্ধ জিততে আর মাত্র দুই ধাপ দূরে রোহিত শর্মা-বিরাট কোহলি। প্রতিযোগিতার শুরু থেকে রোহিত বলে আসছেন ১৫ বছরের খরা মেটাতে মরিয়া 'মেন ইন ব্লু' ব্রিগেড। প্রথমে ব্যাট করে বারবার চাপের মুখে পড়লেও ৬ উইকেটে ১৬৮ রান তুলে নিল ভারত। তবে রোহিতের বোলাররা জস বাটলার ও অ্যালেক্স হেলসকে আটকে রাখতে পারলেন না। ১০ উইকেটে জিতে ফাইনালে চলে গেল ইংল্যান্ড। এবার মেলবোর্নে সামনে পাকিস্তান। 

দুই আগ্রাসী ওপেনারের সৌজন্যে পাকিস্তানের বিরুদ্ধে ফাইনাল খেলার স্বপ্ন দেখছে ইংল্যান্ড। ছবি: টুইটার

ভারতের ৬ উইকেটে ১৬৮ রানের জবাবে ব্যাট করতে নেমে ইংল্যান্ড ১৬ ওভারে বিনা উইকেটে ১৭০ রান তুলে ম্য়াচ জিতে যায় ইংল্যান্ড। ২৪ বল বাকি থাকতে ১০ উইকেটের বড় জয়ে ফাইনালের টিকিট নিশ্চিত করে ইংল্যান্ড। শামির ওভারে ১৪ রান ওঠে। ১টি চার মারেন হেলস। ১টি ছক্কা হাঁকান বাটলার। হেলস ৪৭ বলে ৮৬ রান করে অপরাজিত থাকেন। তিনি ৪টি চার ও ৭টি ছক্কা মারেন। বাটলার ৪৯ বলে ৮০ রান করে নট-আউট থাকেন। তিনি ৯টি চার ও ৩টি ছক্কা মারেন। শামি ৩ ওভারে ৩৯ রান খরচ করেন। বাকি ভারতের বোলারদের পারফরম্যান্সও খুব খারাপ। 

ফের একবার আইসিসি ইভেন্ট থেকে খালি হাতে ফিরল ভারত। শামিকে ছক্কা মেরে ইংল্যান্ডকে ফাইনালে তুলে দিলেন অ্যালেক্স হেলস। এবার সাহেবদের সামনে পাকিস্তান। 

রান তুলেই চলছে ইংল্যান্ড। ১৩ ওভারে ইংল্যান্ডের রান ১৪০। জেতার জন্য দরকার ৪২ বলে মাত্র ২৯ রান।   

অ্যালেক্স হেলস ২৯ বলে ৫১ ও জস বাটলার ২৫ বলে ৩৬ রানে ক্রিজে থেকে দলকে ফাইনালের স্বপ্ন দেখাচ্ছেন। 

২৮ বলে ৫০ রানে অপরাজিত থেকে ভারতের ঘুম উড়িয়ে দিলেন। মারলেন ১টি চার ও ৫টি ছক্কা। 

পাওয়ার প্লে ম্যাচের ভাগ্য গড়ে দিল। অ্যালেক্স হেলস ১৯ বলে ৩৩ ও জস বাটলার ১৭ বলে ২৮ রানে ক্রিজে আছেন। 

ভারত ৬ ওভারে ১ উইকেটে ৩৮ রান তুলেছিল। সেখানে ছয় ওভারে ইংল্যান্ডের রান ৬৩। 

ভারত ৬ ওভারে ১ উইকেটে ৩৮ রান তুলেছিল। সেখানে ইংল্যান্ড চার ওভারে তুলে নিল ৪১ রান। 

চালিয়ে খেলছেন দুই ইংরেজ ওপেনার। চার ওভারে ইংল্যান্ডের রান ৪১। বাটলার ২৪ ও অ্যালেক্স হেলস ১৫ রানে ক্রিজে আছেন। 

মাত্র দুই ওভারে ২৩ রান দিলেন ভুবি। তিন ওভারে ইংল্যান্ডের রান ৩৩। বাটলার ১৮ ও অ্যালেক্স হেলস ১৩ রানে ক্রিজে আছেন। 

দুই ওভারে ইংল্যান্ডের রান ২১। বাটলার ১৭ ও অ্যালেক্স হেলস ২ রানে ক্রিজে আছেন। 

ভুবনেশ্বর কুমারের প্রথম ওভারেই তিনটি চার মারলেন ইংরেজ অধিনায়ক। এক ওভারে ইংল্যান্ডের রান ১৩। 

হার্দিকের ৩৩ বলে ৬৩ রানের সৌজন্যে ভারত ৬ উইকেটে ১৬৮ রান তুলেছে। ইংল্যান্ডের জেতার জন্য দরকার ১৬৯। 

স্যাম কারেনকে বুঝে অর্ধ শতরান সেরে নিলেন হার্দিক পান্ডিয়া। মাত্র ২৯ বলে ফিফটি। মারলেন ৩টি চার ও ৪টি ছক্কা। 

ফের একবার অর্ধ শতরান করে আউট হলেন 'কিং কোহলি'। ১৩৬ রানে ৪ উইকেট হারাল টিম ইন্ডিয়া। 

১৫ ওভারে ভারত ৩ উইকেটে ১০০ রান তুলেছে। বিরাট ৪৩ ও হার্দিক ৯ রানে ক্রিজে আছেন। 

ভারতের বিরুদ্ধে স্পিনার আদিল রশিদের উপর ভরসা রেখেছিলেন জস বাটলার। রশিদ ৪ ওভারে ২০ রান দিয়ে একটি উইকেট নিয়ে চলে গেলেন। মাঝের ওভারে রান আটকে রাখার কাজটা করে দিলেন রশিদ।

মোক্ষম সময় দ্রুত অস্তে গেলেন সূর্য। ৭৫ রানে ৩ উইকেট হারাল টিম ইন্ডিয়া। 

আদিল রশিদের বলকে এক্সট্রা কভারের উপর দিয়ে মারতে গেলে ফিল সল্টের হাতে ক্যাচ দিয়ে আউট হলেন ফর্মে থাকা 'স্কাই'। 

বেন স্টোকসকে অ্যাটাক করলেন 'স্কাই'। ১১ ওভারে ভারতের রান ২ উইকেটে ৭৪। বিরাট ২৭ ও সূর্য ১৪ রানে ক্রিজে আছেন। 

ক্রিস জর্ডনকে মারতে গিয়ে স্যাম কারেনের হাতে ক্যাচ দিয়ে ফিরে গেলেন রোহিত (২৭)। 

রোহিত ২০ ও বিরাট ১২ রানে ক্রিজে আছেন। দুই মহাতারকার দিকে তাকিয়ে টিম ইন্ডিয়া। 

স্যাম কারেনের ওভারে মাত্র ১ রান পেল টিম ইন্ডিয়া। তিন ওভারে ভারতের রান ১ উইকেটে ১১। 

১.৩ ওভারে ক্রিস ওকসের অফ স্টাম্পের বাইরে যাওয়া বলে অহেতুক মারতে গিয়ে বাটলেরের হাতে ক্যাচ দিয়ে ফিরলেন কেএল রাহুল। ৯ রানে ১ উইকেট হারাল টিম ইন্ডিয়া। 

জোস বাটলার (অধিনায়ক ও উইকেট কিপার), অ্যালেক্স হেলস, ফিল সল্ট, বেন স্টোকস, হ্যারি ব্রুক, লিয়াম লিভিংস্টোন, মঈন আলি, স্যাম কারান, ক্রিস জর্ডন, ক্রিস ওকস ও  আদিল রশিদ।

কেএল রাহুল, রোহিত শর্মা (অধিনায়ক), বিরাট কোহলি, সূর্যকুমার যাদব, হার্দিক পান্ডিয়া, ঋষভ পন্থ (উইকেট কিপার), অক্ষর প্যাটেল, রবিচন্দ্রন অশ্বিন, ভুবনেশ্বর কুমার, মহম্মদ শামি ও  অর্শদীপ সিং।

চোটের জন্য ইংল্যান্ড এই ম্যাচে দলে পাচ্ছে না ডেভিড মালান ও মার্ক উডকে। বদলে মাঠে নামছেন ফিল সল্ট ও ক্রিস জর্ডন। 

ম্যাচের আগের দিন কোন উইকেটকিপার প্রথম একাদশে থাকবেন, সেটা নিয়ে ধোঁয়াশা বজায় রেখেছিলেন রোহিত শর্মা। এখন দেখার কার্তিকের জায়গায় পন্থ সুযোগ পান কিনা। 

অ্যাডিলেড ওভালের বাইশগজ তুলনায় স্লো বোলারদের সাহায্যে করে। তার উপর পুরনো পিচে খেলা হবে ভারত-ইংল্যান্ড দ্বিতীয় সেমিফাইনাল ম্যাচ। এই পিচেই গত ৪ নভেম্বর অস্ট্রেলিয়া-আফগানিস্তান ম্যাচ খেলা হয়েছিল। 

শুধু উপমহাদেশের ক্রিকেটপ্রেমীরাই নন, বরং গোটা দুনিয়ার ক্রিকেট অনুরাগীই চাইছেন টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের মেগা ফাইনালে ভারত-পাকিস্তানের লড়াই দেখতে। সেমিফাইনালে নিউজিল্যান্ডকে হারিয়ে পাকিস্তান ইতিমধ্যেই বিশ্বকাপের ফাইনালে উঠেছে। এবার চ্যালেঞ্জ ভারতের সামনে। টিম ইন্ডিয়া কি পারবে সেমিফাইনাবে ইংল্যান্ডের বাধা টপকে যেতে? এবং ১৩ নভেম্বর মেলবোর্নের বাইশ গজে কি 'মাদার অফ অল ব্যাটেল' আয়োজিত হবে?